ব্যাকগ্রাউন্ড

মুক্তচিন্তার বিশ্ব

আপনার পছন্দের যে কোন কিছু সহব্লগারদের সাথে শেয়ার করতে ও শেয়ার কৃত বিষয় জানতে এখানে ক্লিক করুণ

ফেইসবুকে!

মুক্তচিন্তায় ব্লগিং

মুক্তচিন্তা ব্লগের সাথে পরিচয় বেশ আগে থেকেই । প্রথমে পাঠক এবং পরে টুকটাক লেখক হিসেবে। এবং বলা যেতে পারে লেখালেখি করার সাহসও পেয়েছি মুক্তচিন্তা ব্লগেরই দুই চার জন সাহসী ব্লগারের কাছ থেকে। আমার কাছে মুক্তচিন্তা একটা ভালোবাসার নাম। মুক্তচিন্তাকে দেখেছি একটা পরিবারের মতো করে। পরিবারের প্রতিটি সদস্যকেই কাছে পেয়েছি। উৎসাহ পেয়েছি, অনুপ্রেরণা পেয়েছি। শিখেছি বিস্তর। ভালোবাসা পেয়েছি। মুক্তচিন্তা ব্লগের লেখকদের জনপ্রিয়তা দেখে অবাক হয়েছি। আমার মতো ছা পোষা লেখক যে আজ অব্দি লেখাটাই শেখেনি তার গল্পেও দুই হাজারের উপরের পাঠক দেখেছি। আর জনপ্রিয় লেখকদের অবস্থান তো ছিল আকাশচুম্বী। কিন্তু হঠাৎ করেই দেখলাম পাঠকের হাহাকার লেগে গেলো ব্লগে। আমাদের মতো বাচ্চা লেখকদের কথা বাদই দিলাম, অনেক শক্তিমান লেখকের লেখাতেও পাঠক সংখ্যা দেখলে আজকাল লজ্জা লাগে। হয়ত আমরা পারি নাই পাঠকের কাঙ্ক্ষিত সেই আকাঙ্খা মেটাতে অথবাও সমস্যাটা আমাদেরই। কারণ ব্লগের পাঠক কখনো হারায় বলে আমার মনে হয় না। তার পিছনে আমার যুক্তি ব্লগ গরু ছাগল পড়ে না কখনো। শিক্ষিত, রুচিশীল পাঠকই ব্লগের মূল পাঠক ছিল। এবং এখনো আছে বলেই আমার ধারণা। হয়ত আমাদের স্থান দখন করে নিয়েছে অন্য কেউ।
তবুও সব দায়ভার আমাদেরই। মাঝখানে ব্লগ থেকে হারিয়ে গিয়েছি আমাদের অনেকেই। আমি নিজেও। অন্যদের কারণ জানি না। তবে আমার কারণটা আমি খুব ভালো ভাবেই জানি। এবং সেটা বলার জন্যই এই পোষ্ট দেয়া।

আমি বা আমরা যারা দুই কলম লেখার চেষ্টা করি( হয় কি না জানি না) এবং নিজেদের শিক্ষানবিশ মনে করি তারা সব সময়ই মুক্তচিন্তায় অন্তরিকতা পেয়েছি। কিন্তু হঠাৎ করেই যেন ছন্দ পতন হলো। অন্তত আমার মনে হয়েছে।

আমি এমনও দেখেছি, একটা পোষ্ট দেয়া হলো তার দুই দিন পরেও লেখাটা এপ্রুভ হলো না। হতেই পারে ব্লগের সন্মানিত এডমিন প্যানেল ব্যস্ত ছিলেন। কিন্তু মন খারাপ হয়, কষ্ট লাগে তখন যখন দেখি আমার সেই পোষ্টের পরে একাধিক লেখা এসেছে এবং সেগুলো এপ্রুভ হয়েছে। এমন কি একই লেখকেরই একাধিক লেখা এপ্রুভাল পেয়েছে। আমার লেখাটা ঝুলে রয়েছে। স্বভাবতই কষ্ট লাগে। আর তার উপর যদি হয় আমাদের মতো তরুনের সাথে এমন যে বা যারা কি না চেষ্টা করছে যুক্তিযুক্ত কিংবা অনিমেষ রহমানদের মতো শক্তিমান লেখকদের পাশাপাশি চলে তাদের কাছ থেকে কিছু শিখতে। বারবার একই ধরনের কষ্ট এক সময় মুক্তচিন্তা থেকে ধীরে ধীরে সরিয়ে এনেছে আমাকে কিংবা হয়ত আরো দুই চারজনকে।
মুক্তচিন্তা থেকে দূরে এসছি। অন্য কোথাও যাওয়াও হয়নি। অন্য কোথাও সুখও অনুভূত হয় না। ঐ যে পরিবারের সুখ কি অন্য কোথাও পাওয়া যায়?
যায় না। পাইওনি। হয়ত মুক্তচিন্তার তাতে ক্ষতি হয়নি। ক্ষতিগ্রস্থ বরং আমিই বা আমরাই হয়েছি কারণ প্রতিনিয়িত শামুক, অনিমেষ রহমান, যুক্তিযুক্ত, জটিবা বাক্যের পাশে থেকে আমার মোটা মাথাটাও অনেক কিছু কল্পনা করে পারত। আজকাল মোটা মাথাটা আরো মোটা হয়ে গেছে। পেটে বোম মারলে আজকাল কিছু বেড়য় না। তাই ফিরতে চাই। শুধু ফিরতেই চাই না সবার আগের মতো সেই ভালোবাসা, সেই আত্মিক সম্পর্ক ফিরে আসুক ব্লগে এই প্রত্যাশাটুকু রাখতে চাই।

মুক্তচিন্তা আবার প্রাণ ফিরে পাক। হ্যাপি ব্লগিং

ছবি
সেকশনঃ সাধারণ পোস্ট
লিখেছেনঃ রাশেদুজ্জামান কানন তারিখঃ 28/01/2017 10:06 PM
সর্বমোট 437 বার পঠিত
ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুণ

সার্চ

সর্বোচ্চ মন্তব্যকৃত

এই তালিকায় একজন লেখকের সর্বোচ্চ ২ টি ও গত ৩ মাসের লেখা দেখানো হয়েছে। সব সময়ের সেরাগুলো দেখার জন্য এখানে ক্লিক করুন